নারী দিবসে সংবাদ পাঠে প্রথম ট্রান্সজেন্ডার নারী (ভিডিও)

গত কয়দিন ধরে খুশির জোয়ার বইছে। খুশিতে আমি কেঁদে ভাসিয়েছি। বৈশাখী টিভি যে কাজটি করেছে, এতে করে রুপান্তরিত নারী-পুরুষরা তাদের সক্ষমতা অনুযায়ী কাজ করার সুযোগ পাবে। আজ (সোমবার) আন্তর্জাতিক নারী দিবসের বিশেষ এই দিনের মধ্যাহ্নের বৈশাখী সংবাদ শিরোনামে খবর পাঠ করেছেন তাশনুভা আনান শিশির। যিনি দেশের প্রথম ট্রান্সজেন্ডার হিসেবে টেলিভিশন চ্যানেলে খবর পাঠ করেছেন।

এরইমধ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার এই অবহেলিত নাগরিকদের মর্যাদা ও অধিকার প্রতিষ্ঠায় নানা উদ্যোগ নিয়েছেন। ভোটার তালিকায় তারা এখন নারী বা পুরুষ হিসেবে নয়, সরাসরি হিজড়া পরিচয়েও নিজেদের নাম নিবন্ধন করার অধিকার পেয়েছেন। বিপুল সংখ্যক হিজড়াকে সরকার ভাতাও দিচ্ছে।

বৈশাখী টিভি কর্তৃপক্ষ সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছে, বাংলাদেশের স্বাধীনতার মূলমন্ত্র ছিল দেশের মানুষের মুক্তি, সবার জন্য বাসযোগ্য, বৈষম্যহীন একটি সমাজ গড়ে তোলা। স্বাধীনতার ৫০ বছরে গর্ব করার মতো অনেক অর্জন থাকলেও বৈষম্যহীন ও সবার জন্য নিরাপদ জীবন নিশ্চিত করা সম্ভব হয়নি। এই ব্যর্থতার কারণে সবচে বড় অবহেলিত জনগোষ্ঠীগুলোর মধ্যে ট্রান্সজেন্ডাররা অন্যতম, যাদেরকে চিরাচরিতভাবে‘হিজড়া’বললে আমাদের সমাজে সকলেই চিনেন।দেশের মানুষ এই প্রথম কোনও পেশাদার সংবাদ বুলেটিনে খবর পাঠ করতে দেখলেন একজন ট্রান্সজেন্ডার নারীকে, যা স্বাধীনতার ৫০ বছরে দেশে আগে কখনো ঘটেনি।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বেসরকারি এই টেলিভিশন চ্যানেল জনসংযোগ কর্মকর্তা দুলাল বলেন, একইভাবে আমরা আমাদের বিনোদন বিভাগের নিয়মিত নাটকের মূল চরিত্রগুলোর একটিতে যুক্ত করেছি আরেকজন ট্রান্সজেন্ডার নারীকে। যার নাম নুসরাত মৌ। যাকে পর্দায় প্রথম দেখা যাবে একইদিন আন্তর্জাতিক নারী দিবসে, ধারাবাহিক নাটক “চাপাবাজ”-এর একটি পর্বে। যা প্রচারিত হবে ৮ মার্চ রাত ৯টা ২০ মিনিটে।

খুলনার বাগেরহাটে ১৯৯১ সালের ১৬ জুন তাসনুভার জন্ম। তিনি নারায়ণগঞ্জের সরকারি তোলারাম কলেজ থেকে সমাজকর্ম বিভাগে অনার্স-মাস্টার্স শেষ করেন। পাশাপাশি ব্র্যাক জেমস পি গ্রান্ট স্কুল অব পাবলিক হেলথ থেকে পাবলিক হেলথ বিষয়ে আরও এক বছরের জন্য মাস্টার্স করছেন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*